ঢাকা, , বুধবার, ১৪ নভেম্বর ২০১৮

চাঁদপুরবাসীর জন্য প্রধানমন্ত্রীর উপহার নৌ এ্যাম্বোল্যান্স

জেলা প্রতিনিধি || প্রকাশ: ২০১৮-১০-০৮ ২০:৩৪:১২ || আপডেট: ২০১৮-১০-০৮ ২০:৩৫:৩৭

চাঁদুপর সদর ও হাইমচর উপজেলার জন্য একটি নৌ এ্যাম্বোল্যান্স উপহার দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।  আজ সোমবার চাঁদপুর ৩ আসনের সংসদ ডা: দীপু মনির কাছে এই এ্যাম্বোল্যান্সটি তুলে দেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।
সূত্র মতে, চাঁদপুর সদরের রাজরাশ^র ও ইব্রাহীমপুর এই দুটি ইউনিয়ন এবং হাইমচর উপজেলার হাইমচর,নীলকমল ও গাজীপুর ইউনিয়ন নদীর ওপার। এই পঁচটি ইউনিয়নের জনগনকেকে পদ্মা নদী পরী দিয়ে স্বাস্থ্য সেবা নিতে শহরে আসতে হয়।
অনেক সময় নৌজান না পাওয়ার কারণে পথে পড়তে অনেক ভোগান্তিতে। অনেক সময় রোগী আনাতে বিলম্ব হওয়ায় রোগী মারাও যায়। নৌ এ্যাম্বোল্যান্সের কথা শুনে আনন্দিত এলাকাবাসী।
তারা বলছেন অবশ্যই এটি একটি ভালো উদ্যোগ। এই উদ্যোগের জন্য সংসদ সদস্যের মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রীকে ধন্যবাদ জানাই।
এ বিষয়ে ইব্রাহীমপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মো. কাসেম খান বলেন, নিশ্চয় এটি চর অঞ্চলবাসীর জন্য অনেক বড় উপহার। এর জন্য প্রধানমন্ত্রীর কাছে কৃতজ্ঞতা জানাই। ইব্রাহীমপুর ইউনিয়ন থেকে ২ থেকে ৩ ঘন্টা লাগে। অনেক সময় নৌযান না পাওয়ার কারণে পথে দূর্ঘটনা ঘটে। এখন এর মাধ্যমে এলাকার জনগন অনেক উপকৃত হবে বলে আমরা বিশ^াস করি।
তার কথা সঙ্গে তাল মিলিয়ে নীলকমল ইউনিয়ন পরিষোধের চেয়ারম্যান সালাউদ্দিন বলেন, এটি অবশ্যই ভালো উদ্যোগ। জাতীর পিতা বঙ্গবুন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান একটি সুখী বাংলাদেশ গড়ার স্বপ্ন দেখেছিলেন। তার স্বপ্ন বাস্তবায়নে কাজ করছেন তার কন্যা শেখ হাসিনা। এই ভালো উদ্যৌগের জন্য নীলকমল ইউনিয়নবাসীর পক্ষ থেকে সংসদ সদস্য ডা: দীপু মনি ও প্রধানমন্ত্রীকে ধন্যবাদ জানাই।
এ বিষয়ে চাঁদুপর সিভিল সার্জন ডা: মো. সাইদুজ্জামান বলেন, এটি ইতোমধ্যে আমরা হাতে পেয়েছি। চাঁদপুর ৩ এর সংসদ সদস্যের সঙ্গে আলাপ করে একটি কর্মপরিকল্পনা ঠিক করবো। সেই আলোকে জনসাধারণের ব্যবহারের জন্য এটি চালু করা হবে।

আর্কাইভ