ঢাকা,সোমবার, ২৭ মে ২০১৯

বিশ্বের ৫০% স্মার্টফোনেই থাকবে তিন ক্যামেরা

সান বিডি ডেস্ক || প্রকাশ: ২০১৯-০৫-১৭ ১১:৪৫:৫১ || আপডেট: ২০১৯-০৫-১৭ ১১:৪৫:৫১

বিভিন্ন স্মার্টফোনের মেগাপিক্সেল ও ক্যামেরা ট্রেন্ড যেভাবে এগোচ্ছে তাতে ধারণা করা হচ্ছে, ২০২১ সালের মধ্যে বিশ্বের অর্ধেক স্মার্টফোনে থাকবে তিনটি করে ক্যামেরা। চলতি বছরে তিন ক্যামেরার স্মার্টফোন নতুন ট্রেন্ড হয়ে গেছে। সেই ধারাবাহিকতা চলতে থাকলে এক বছর পর ওই অবস্থানে যাওয়া সম্ভব হবে বলে জানাচ্ছে বাজার গবেষণা প্রতিষ্ঠান কাউন্টার পয়েন্ট রিসার্চ।

প্রতিষ্ঠানটি বলছে, ২০১৮ সালের মার্চ পযর্ন্ত বিশ্বে যে পরিমাণ স্মার্টফোন বিক্রি হয়েছে তার ৬ শতাংশ তিন বা তার বেশি ক্যামেরা সেন্সরযুক্ত। এই সংখ্যা চলতি বছরের শেষ নাগাদ গিয়ে দাঁড়াবে ১৫ শতাংশে। আর ২০২০ সালের শেষে হবে ৩৫ শতাংশ। কাউন্টার পয়েন্ট রিসার্চের ডিভাইস ও ইকোসিস্টেম বিভাগের জ্যেষ্ঠ বিশ্লেষক হানসি ভাটিয়া বলেন, ২০১৮ সালের যে ট্রেন্ড ছিল তাতে স্মার্টফোনে দুটি ক্যামেরা বেশি থাকতো। আর এর দাম ছিল একেবারে স্বল্প থেকে কিছুটা বেশি। যখন তিন ক্যামেরার ফোন আনা শুরু হল তখন সেটি শুধু প্রিমিযাম ডিভাইসের থাকতো। ফলে দামটাও ছিল অনেক। কিন্তু গত বছরের শেষ এবং চলতি বছরের এই প্রায় মাঝামাঝি চলে আসা সময় পর্যন্ত প্রিমিয়াম তো বটেই, মাঝারি বাজেট এমনকি মাঝারির কিছুটা কম বাজেটের ফোনেও তিনটি ক্যামেরা রাখার চেষ্টা করে যাচ্ছে স্মার্টফোন ব্র্যান্ডগুলো।

চলতি বছরের এপ্রিলে ৪০টির বেশি মডেলের স্মার্টফোন উন্মোচন হয়েছে যেগুলোতে তিন বা তার বেশি ক্যামেরা রয়েছে। আর চলতি বছরেরই প্রথম প্রান্তিকে আসা অন্তত ৩০টি মডেলের স্মার্টফোনে তিন বা তার বেশি ক্যামেলা ছিল। এগুলোর মধ্যে অবশ্য আধিপত্য করছে চীনা ব্র্যান্ড হুয়াওয়ে এবং দক্ষিণ কোরিয় ব্র্যান্ড স্যামসাং। এছাড়াও ভিভো, ওয়ানপ্লাস, শাওমি, অপ্পো তিন ক্যামেরার ফোন আনছে।