ইলিশ ধরায় নিষেধাজ্ঞা: প্রভাব পড়েছে বাজারে

সান বিডি ডেস্ক || প্রকাশ: ২০১৯-১০-০৯ ১২:১৭:২৮ || আপডেট: ২০১৯-১০-০৯ ১২:১৭:২৮

সরকারের নিষেধাজ্ঞা থাকায় রাজধানীর বাজারে দেখা যায়নি রূপালি ইলিশ। ফলে এর প্রভাব পড়েছে অন্য মাছের দামে। যে কারণে বাজারে অন্য সব মাছের দাম ঊর্ধ্বমুখী। বুধবার (০৯ অক্টোবর ২০১৯) রাজধানীর কয়েকটি বাজার ঘুরে এ চিত্র দেখা গেছে।

মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রণালয়ের ঘোষণা অনুযায়ী, ৯ থেকে ৩১ অক্টোবর ২২ দিন ইলিশ-আহরণ, পরিবহন, বাজারজাতকরণ, ক্রয়-বিক্রয়, মজুদ ও বিনিময় সম্পূর্ণরূপে নিষিদ্ধ থাকবে। সেই অনুযায়ী এ নিষেধাজ্ঞা বুধবার থেকে কার্যকর হয়েছে।

সরেজমিন রাজধানীর কয়েকটি বাজার ঘুরে দেখা যায়, নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে কোনো ব্যবসায়ী বাজারে ইলিশ নিয়ে আসেননি। ফলে পাইকারি ও খুচরা বাজারে অন্য মাছের দামে এর প্রভাব পড়েছে।

রাজধানীর মালিবাগ, শান্তিনগর, রামপুরা, খিলগাঁও, উত্তর বাড্ডা ও নতুনবাজার ঘুরে দেখা যায়, নিষেধাজ্ঞা থাকায় বাজারে ইলিশ তোলেননি খুচরা ও পাইকারি ব্যবসায়ীরা। যার প্রভাবে বাজারের অন্য মাছে কেজিতে ৫০ টাকা থেকে শুরু করে ১০০ টাকা পর্যন্ত বেড়েছে।

বাজারে প্রতি কেজি চাপিলা ২৫০-৩০০, কাচকি প্রতি কেজি ৩০০ থেকে ৪০০ টাকা, রুপচাঁদা প্রতি কেজি ৭০০ থেকে ১২০০ টাকা, আকারভেদে রুই মাছ প্রতি কেজি ২৫০ থেকে ৩৫০ টাকা, মৃগেল প্রতি কেজি ২২০ থেকে ৩০০ টাকা, বাইলা মাছ প্রতি কেজি ৩০০ থেকে ৪৫০ টাকা, চিংড়ি হরিনা প্রতি কেজি ৪০০ থেকে ৫৫০ টাকা, গলদা প্রতি কেজি ৪৫০ থেকে ৬৫০ টাকা, বাগদা কেজিপ্রতি ৪০০ থেকে ৭০০ টাকা, প্রতি কেজি তেলাপিয়া ১৫০ থেকে ২০০ টাকা, টাকি ২৫০ থেকে ৩৫০ টাকা, পাঙাস ১৫০ থেকে ১৮০ টাকা, শিং ৩০০ থেকে ৭৫০ টাকা, কৈ মাছ ১৮০-২২০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।
সানবিডি/ঢাকা/এসএস

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ