রাশিয়ায় পণ্য রপ্তানিতে সহায়তার আশ্বাস রাষ্ট্রদূতের

নিজস্ব প্রতিবেদক || প্রকাশ: ২০২১-০৯-১৩ ২২:০৯:৩১ || আপডেট: ২০২১-০৯-১৩ ২২:০৯:৩১

সম্ভাবনাময় বাজার রাশিয়ায় পণ্য রপ্তানিতে বাংলাদেশি ব্যবসায়ীদের সহায়তার আশ্বাস দিয়েছেন ঢাকায় নবনিযুক্ত রাশিয়ার রাষ্ট্রদূত আলেকজান্ডার ভিকেন্তেভিচ ম্যান্টিটস্কি।

সোমবার (১৩ সেপ্টেম্বর) কমনওয়েলথ অব ইন্ডিপেন্ডেন্ট স্টেটস-বাংলাদেশ চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রিজের (সিআইএস-বিসিসিআই) সভাপতি মো. হাবিব উল্লাহ ডন ও পরিচালনা পর্ষদের সদস্যরা রাষ্ট্রদূতের সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাতে গেলে তিনি এ আশ্বাস দেন।

সিআইএস-বিসিসিআইয়ের সিনিয়র সহসভাপতি মোহাম্মদ আলী দ্বীন, উপদেষ্টা মনজুর আহমেদ ও মাহাবুব ইসলাম রুনু, পরিচালক তৌহিদা সুলতানা, ডা. যশোদা জীবন দেবনাথ (সিআইপি), সালমা হোসেন এ্যাশ, আব্দুল লতিফ সরকার, সচিব মুস্তাফা মহিউদ্দীন এ সময় উপস্থিত ছিলেন।

সাক্ষাতে সিআইএস-বিসিসিআইয়ের সভাপতি রাশিয়া-বাংলাদেশের সৌহার্দ্যপূর্ণ ও গভীর সম্পর্কের কথা উল্লেখ করে দুদেশের মধ্যে ক্রমশ প্রসারমান ব্যবসায় বাণিজ্য ও সহায়তার ক্ষেত্রে রাষ্ট্রদূতের সহায়তা চান। হাবিব উল্লাহ ডন বলেন, রপ্তানি বাজার বহুমুখীকরণে প্রচেষ্টা হিসেবে রাশিয়াকে একটি সম্ভাবনাময় বাজার হিসেবে দেখছে এ দেশের ব্যবসায়ীরা। এ জন্য সরকারের উদ্যোগের পাশাপাশি পারস্পরিক ও দ্বিপাক্ষিক বাণিজ্য বাড়াতে সিআইএস-বিসিসিআই চেম্বার কাজ করছে।

তিনি বলেন, এ দেশের পোশাক খাতসহ চামড়া ও পাটজাত দ্রব্য, হিমায়িত মাছ, ওষুধ শিল্পের সম্ভাবনাময় বাজার রাশিয়া। এ সম্ভাবনাকে কাজে লাগানোর জন্য সিআইএস চেম্বার রাশিয়া-বাংলাদেশের মধ্যে আন্ত-ব্যাংকিং সুবিধাসহ মালামাল পরিবহনে যোগাযোগব্যবস্থার উন্নতিতে কাজ করছে। একই সঙ্গে রাশিয়ার ওয়্যারহাউস সুবিধার জন্য দুই দেশের সরকার যাতে প্রচেষ্টা অব্যহত রাখে সে লক্ষ্যে কাজ করবে।

রুশ রাষ্ট্রদূত আলেকজান্ডার বলেন, চলতি বছরের শেষ দিকে আন্তঃসরকার কমিশনের পরবর্তী আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে। কমিশনের সিদ্ধান্তগুলো বাস্তবায়নের লক্ষ্যে প্রণীত রোডম্যাপ কার্যকর করার প্রক্রিয়া জোরদার করতে হবে। একই সঙ্গে দুই দেশের ‘বিজনেস টু বিজনেস’ সহযোগিতা আরও শক্তিশালী করতে হবে।

সিআইএস চেম্বারের সদস্য ও যেসব ব্যবসায়ী রাশিয়ার সঙ্গে আমদানি-রপ্তানি বাণিজ্যে নিয়োজিত রয়েছেন তাদের তালিকা দূতাবাসে পাঠাতে অনুরোধ করেন রুশ রাষ্ট্রদূত আলেকজান্ডার। এসব ব্যবসায়ীকে দূতাবাসের পক্ষ থেকে সর্বাত্মক সহযোগিতা দেয়া হবে। এ ছাড়া রাশিয়ায় বিভিন্ন পণ্যের মেলায় বাংলাদেশের অংশগ্রহণের ওপর জোর দেন এই রাষ্ট্রদূত।

এএ

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •