জবির টিএসসি উদ্ধারের উদ্যোগ

প্রকাশ: ২০১৫-১১-২৬ ১৯:১৯:৪০ আপডেট: ২০১৫-১১-২৬ ১৯:১৯:৪০

JNU 1জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের (জবি) শিক্ষার্থীদের ঘোষিত টিএসসির জমি বেদখলে রয়েছে। কিছুদিন আগে অবৈধ দখলদাররা সেখানে শীতকালীন কাপড়ের ব্যবসা বসিয়েছে। এ নিয়ে গণমাধ্যমে সংবাদ প্রকাশিত হওয়ায় শিক্ষার্থীরা ফুসে উঠে। এতে টনক নড়ে কর্তৃপক্ষের। ফলে এখন তা উদ্ধারের উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে।

বৃহস্পতিবার জবি উপাচার্য কার্যালয়ে এডুকেশন ইঞ্জিনিয়ারিং ডিপার্টমেন্ট (ইইডি) এর প্রতিনিধি দলের সঙ্গে এক সভায় এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে বলে উপাচার্য অধ্যাপক ড. মীজানুর রহমান জানিয়েছেন।

তিনি বলেন, বাংলাবাজারে নির্মানাধীন জবির ছাত্রী হলের নির্মাণ সরঞ্জাম রাখার কোন জায়গা নেই। এ জন্য সমবায় ব্যাংকের জমিটি সাময়িকভাবে ব্যাবহার করা হবে। সেখানে রড, সিমেন্টসহ অন্যন্য নির্মাণ সামগ্রী রাখা হবে। শিগগির জমিটি খালি করার জন্য সংশ্লিষ্ট দপ্তরকে নির্দেশ দেয়া হবে।

এ দিকে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের এ উদ্যোগকে সাধুবাদ জানিয়েছেন শিক্ষার্থীরা। টিএসসি উদ্ধার আন্দোলনের এক সদস্য রিফাত রাজ বলেন, জমিটি অবৈধ দখলদারদের হাত থেকে উদ্ধারের উদ্যোগ নেয়ায় প্রশাসনকে সাধুবাদ। জবি প্রশাসনের এ উদ্যোগকে স্বাগত জানিয়ে জবি ছাত্রলীগের সভাপতি শরিফুল ইসলাম বলেন, শিক্ষার্থীদের দখলকৃত জমি উদ্ধারের জন্য শিক্ষার্থীরা দীর্ঘদিন ধরে দাবি জানিয়ে আসছে। এ উদ্যোগ নেয়ায় জবি উপাচার্যকে তিনি ধন্যবাদ জানান।

উল্লেখ্য, গত বছর ফেব্রুয়ারীতে হল আন্দোলনের সময় জবির প্রধান ফটকের সামনে রাস্তার উল্টোপাশে সমবায় ব্যাংকের জমিটি টিএসসি প্রতিষ্ঠার উদ্দেশ্যে দখল করে জবি শিক্ষার্থীরা। বর্তমানে সেখানে কাপড়ের ব্যবসা বসিয়েছে অবৈধ দখলদাররা। গণমাধ্যমে সংবাদ প্রকাশের পরও এখনো তারা বহাত তবিয়তে ব্যবসা চালিয়ে যাচ্ছেন। তবে প্রশাসনের এ ধরনের উদ্যোগের ফলে আবারো শিক্ষার্থীরা অধিকার ফিরে পাবে বলে আশা করা হচ্ছে।

সানবিডি/ঢাকা/ইসমাইল/এসএস