চিকিৎসায় সারবে বার্ধক্যজনিত অন্ধত্ব!

|| প্রকাশ: ২০১৫-০৯-২৯ ১৬:১৭:০২ || আপডেট: ২০১৫-০৯-২৯ ১৬:১৭:০২

jakia..eye_85077বার্ধক্যজনিত অন্ধত্বের শিকার এমন লাখ লাখ মানুষের জন্য সুখবর আনতে চলেছে যুক্তরাজ্যের একদল গবেষক। সম্প্রতি তাদের গবেষণায় জানা গেছে, স্টিম সেলের মাধ্যমে বার্ধক্যজনিত অন্ধত্বের শিকার হওয়া ব্যক্তিদের দৃষ্টি ফিরিয়ে দেয়া সম্ভব।

যুক্তরাজ্যের প্রায় ছয় লাখ মানুষ বার্ধক্যজনিত অন্ধত্বে ভুগছে। এর প্রধান কারণ চোখের ম্যাকুলার কোষের পতন। সেখানকার একটি হাসপাতাল বৈপ্লবিক কৌশলে এই অন্ধত্ব সারানোর প্রতিশ্রুতি দিয়েছে।

মাত্র ৪৫ মিনিটের চিকিৎসায় তারা অন্ধ ব্যক্তিদের চোখে আলো ফিরিয়ে আনবে। বিশ্বে প্রথমবারের মতো এরকম পদক্ষেপ নেয়া হল।

ইউনিভার্সিটি কলেজ লন্ডন এর গবেষকদের আবিষ্কৃত এই প্রক্রিয়ায় মুরফিল্ড চক্ষু হাসপাতালের চিকিৎসকরা ৬০ বছর বয়সী অন্ধ নারীর রেটিনা কোষে একটি প্যাচ প্রবেশ করিয়েছেন। তারা আশা করছেন এটি কার্যকর হবে, যদিও ডিসেম্বরের আগে নিশ্চিত করে কিছু বলা যাবে না।

জানা গেছে, এই চিকিৎসার ফলে চোখে কোন জটিলতার সৃষ্টি হবে না এবং ক্ষত দ্রুত শুকিয়ে যাবে।

পরীক্ষামূলকভাবে দশজন রোগীর উপর এই প্রক্রিয়া চালানো হয়। সফল হলে দুই-আড়াই বছরের মধ্যে চিকিৎসাটি সব জায়গায় চালু করা হবে।

রেটিনা চিকিৎসক অধ্যাপক লিন্ডন দ্যা ক্রুজ বলেন, ম্যাকুলার কোষ প্রতিস্থাপনের মাধ্যমে ভবিষ্যতে বয়স্ক মানুষদের উপকৃত হবার যথেষ্ট সম্ভাবনা রয়েছে।

সানবিডি/ঢাকা/রাআ