ইস্পাত-আকরিক লোহার রফতানি শুল্ক কমাচ্ছে ভারত

নিজস্ব প্রতিবেদক প্রকাশ: ২০২২-০৯-২১ ০৯:১৩:৩৩

ভারত সরকার দেশটিতে আকরিক লোহা ও ইস্পাতের রফতানি শুল্ক কমাতে যাচ্ছে । কারণ ঊর্ধ্বমুখী শুল্কের কারণে এসব ধাতুর রফতানি ব্যাপকভাবে ব্যাহত হচ্ছে। শুল্ক কমানোর সিদ্ধান্ত নেয়া হলে  ধাতু দুটির রফতানি বাড়বে বলে প্রত্যাশা করা হচ্ছে। খাতসংশ্লিষ্ট দুটি সূত্র এ তথ্য জানিয়েছে। খবর হিন্দুস্তান টাইমস।

এ বিষয়ে সূত্র দুটি বলছে, উচ্চমাত্রার রফতানি শুল্কের কারণে স্থানীয় বাজারে এসব ধাতুর দাম লক্ষণীয় মাত্রায় কমেছে। অন্যদিকে সরবরাহ বেড়ে চাহিদাকে ছাড়িয়ে গিয়েছে। ফলে এখন আর উচ্চমাত্রার রফতানি শুল্কের প্রয়োজন নেই।

সরকারসংশ্লিষ্টরা জানান, আকরিক লোহা ও ইস্পাতের বৈশ্বিক চাহিদা নিম্নমুখী। ফলে স্থানীয় বাজারে সরবরাহ নিয়ে যে অনিশ্চয়তা এবং উদ্বেগ ছিল তা কেটে গিয়েছে। বাজার পরিস্থিতি ও যাবতীয় তথ্য বিশ্লেষণ করা হচ্ছে। রফতানি শুল্ক কমানোর সিদ্ধান্ত প্রক্রিয়াধীন।

প্রসঙ্গত, ভারতের অর্থ মন্ত্রণালয় গত ২২ মে আকরিক লোহা ও ইস্পাতের রফতানি শুল্ক ১৫ শতাংশ থেকে বাড়িয়ে ৪৫ শতাংশে উন্নীত করে। উদ্দেশ্য স্থানীয় উৎপাদন শিল্প খাতে ধাতু দুটির পর্যাপ্ত সরবরাহ নিশ্চিত করা।

সরকারি তথ্য বলছে, এপ্রিল থেকে জুলাই পর্যন্ত ভারতের আকরিক লোহা রফতানি ৬৯ দশমিক ১৪ শতাংশ কমেছে। এ সময় দেশটি ৬৪ কোটি ২৫ লাখ ৬০ হাজার ডলারের আকরিক লোহা রফতানি করেছে। অথচ গত বছরের একই সময় রফতানি করা হয়েছিল ২০৮ কোটি ডলারের আকরিক লোহা।

অন্যদিকে ইস্পাত ও আকরিক লোহার সম্মিলিত রফতানি ২১ দশমিক ৩৩ শতাংশ কমেছে। চলতি অর্থবছরের প্রথম পাঁচ মাসে দেশটি ৬১০ কোটি ডলারের ইস্পাত ও আকরিক লোহা রফতানি করে। গত বছরের একই সময় যা ছিল ৭৭০ কোটি ডলারের।

এনজে

Print Print