অবশেষে জামিন পেলেন আরিয়ানরা

প্রকাশ: ২০১৫-১০-১৯ ১৫:৪৯:৩৩ আপডেট: ২০১৫-১০-১৯ ১৫:৫৩:০৯

Ariyan

পথশিশুদের নিয়ে কাজ করা ‘মজার স্কুলে’র আরিফ-জাকিয়াসহ চার স্বেচ্ছাসেবক নিম্ন আদালতে জামিন পেয়েছেন। সোমবার ঢাকা মহানগর আদালতের বিচারক মো. ইউসুফ হোসেনের আদালতে এ মামলার শুনানি অনুষ্ঠিত হয়। শুনানি শেষে পাঁচ হাজার টাকা বন্ডে তাদের জামিন মঞ্জুর করেন আদালত।

উল্লেখ্য, গত ১২ সেপ্টেম্বর রামপুরার বনশ্রীতে অদম্য বাংলাদেশ ফাউন্ডেশনের আশ্রয়কেন্দ্র থেকে ১০ শিশুকে `উদ্ধার` করে পুলিশ। এ সময় আশ্রয়কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা এই চার স্বেচ্ছাসেবককে গ্রেফতার করা হয়।

পুলিশ বলে, সেখানে থাকা মোবারক নামে এক শিশুর চাচা অভিযোগ করেন, তার ভাতিজাকে জোর করে আশ্রয়কেন্দ্রে আটকে রাখা হয়েছে। এই অভিযোগে তিনি মানবপাচার প্রতিরোধ ও দমন আইনে একটি মামলা করেন। এরই ভিত্তিতে চারজনকে গ্রেফতারের পর দু`দিনের রিমান্ডে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়।

আরিয়ানদেরকে গ্রেফতারের পর থেকে ফেসবুকসহ বিভিন্ন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শুরু হয় তোলপাড়। আরিয়ানদের কাজের সঙ্গে পরিচিত অনলাইন অ্যাক্টিভিস্ট আশীফ এন্তাজ রবি ফেসবুকে প্রধানমন্ত্রীর উদ্দেশে লেখা স্ট্যাটাসে তাকে বিষয়টি দেখার আকুল আবেদন জানালে সেখানে মুখ্য প্রেস সচিব ও উপ প্রেস সচিব যোগাযোগ করেন।

প্রধানমন্ত্রী কার্যালয়ের মুখ্য সচিব আবুল কালাম আজাদ সেই স্ট্যাটাসে কমেন্ট করে রবিদেরকে তার সঙ্গে দেখা করার আমন্ত্রণ জানান। তিনি ধৈর্য সহকারে তাদের কথা শুনেন এবং এ ব্যাপারে খোঁজ খবরও নেন। এ ব্যাপারে প্রধানমন্ত্রী কার্যালয়ের উপ প্রেস সচিব আশরাফুল আলম খোকনও সহযোগিতা করেন।

প্রসঙ্গত, অদম্য বাংলাদেশ একটি স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন। সারাদেশের পথশিশুদের নিয়ে কাজ করে থাকে। নিজেদের অর্থ খরচ করে এসব পথশিশুদেরকে পোশাক ও খাবার দেয়াসহ জীবন মানোন্নয়নে কাজ করছে। এ সংগঠনে কাজ করছেন প্রায় তিন শতাধিক স্বেচ্ছাসেবী।