গ্রামীণ উন্নয়নের রোল মডেল ইসলামী ব্যাংকের আরডিএস

|| প্রকাশ: ২০১৫-১০-২২ ১৫:৩৮:৪৬ || আপডেট: ২০১৫-১০-২২ ১৫:৩৮:৪৬

IBBL 21.10.15গ্রামীণ উন্নয়নের রোল মডেল ইসলামী ব্যাংকের আরডিএস। এ প্রকল্পের আওতায় ২০০৫ সালে চট্টগ্রামের পটিয়া থানার পাইকপাড়া গ্রামের গৃহবধূ মনোয়ারা বেগম সদস্য হন এবং তিনি এ পর্যন্ত ১১ দফায় ব্যাংক থেকে বিনিয়োগ নিয়ে কাপড় ব্যবসা করে এখন সফল নারী ব্যবসায়ী।

উল্লেখ্য, বর্তমানে মনোয়ারার ব্যবসার পরিধি অনেক বেড়েছে। চট্টগ্রামসহ বিভিন্ন মার্কেটে শাড়িকাপড়, বেডশিট, মশারি, লুঙ্গি, বাচ্চাদের পোশাকসহ অন্যান্য তৈরি পোশাক সরবরাহ করেন তিনি। দামে কম ও মানসম্মত হওয়ায় তার সরবরাহ করা কাপড়ের চাহিদাও রয়েছে এলাকায় প্রচুর। ব্যাংকের ১ লাখ ৪৪ হাজার টাকার বিনিয়োগসহ বর্তমানে তার ব্যবসার মোট মূলধন বেড়ে দাঁড়িয়েছে সাড়ে তিন লাখ টাকা।

তিনি এখন আর্থিকভাবে স্বাবলম্বী। বাড়তি আয় দিয়ে তিনি সাত শতাংশ জমি কিনেছেন। নিজের জায়গায় একটি সেমিপাকা বাড়ি নির্মাণ করেছেন। তার সংসারে এখন সুখের হাওয়া বইছে।

মনোয়ারা বেগমের মত দেশের সাড়ে ১৯ হাজার গ্রামের ৯ লক্ষাধিক সদস্যের জীবন স্বনির্ভরতা ও সচ্ছলতা এনেছে ইসলামী ব্যাংকের পল্লী উন্নয়ন প্রকল্প। পল্লী উন্নয়ন প্রকল্পের মাধ্যমে নারীর ক্ষমতায়ন, কর্মসংস্থান ও আর্থিক অন্তর্ভুক্তিতে ভূমিকা রাখছে ইসলামী ব্যাংক।

সানবিডি/ঢাকা/এসএস