মৌসুমীর মন খারাপ!

|| প্রকাশ: ২০১৫-১১-০৩ ২০:৫৩:৫৯ || আপডেট: ২০১৫-১১-০৩ ২০:৫৫:২০

mousumi_89359জন্মদিন সবার কাছেই একটা বিশেষ দিন।  বাংলা চলচ্চিত্রের ‘প্রিয়দর্শিনী’ মৌসুমীর জন্য সেই দিনটি ছিল আজ।  কিন্তু বিশেষ এ দিনে মন ভালো নেই শতাধিক ছবিতে অভিনয় করা এ নায়িকার। যার ছাপ ফুটে ওঠে তার চোখে-মুখেও। জন্মদিনে ছিল না কোনো আয়োজন।  বিভিন্ন টিভি চ্যানেল থেকে দাওয়াত পেলেও এড়িয়ে গেছেন তাদেরও। কি এমন হল জন্মদিনে? যার কারণে সদা হাসিমাখা চাঁদমুখে হঠাৎ কালো মেঘের ঘনঘটা। এ ব্যাপারে মুখ ফুটে মৌসুমী কিছু না জানালেও, তাঁর হয়ে মন খারাপের খবর জানালেন স্বামী ওমর সানি।

কয়েকদিন আগেই গত হয়েছেন বিশিষ্ট সাংবাদিক আওলাদ হোসেন। মৌসুমী সানির বিয়ের পেছনে যার ছিল বিশেষ অবদান। তাছাড়া চিত্রনায়িকা দিতিও আজ দ্বিতীয় দফায় চিকিৎসার জন্য চলে গেছেন ভারতে।  সমস্যা বেশ গুরুতর তাঁর। সানির ভাষ্য মতে,  ‘প্রিয় এ দুজন মানুষের জন্যই মন খারাপ মৌসুমীর।  এই মুহূর্তে জন্মদিনের অনুষ্ঠান পালন করার মত মন-মানুসিকতা আমাদের নেই।  দিতি আপা সুস্থ হয়ে ফিরে আসলে সবাইকে নিয়ে বড় করে জন্মদিনের অনুষ্ঠান পালন করবো’ জানালেন ওমর সানি।

সোমবার রাত ১২টায় খুব সাদাসিধেভাবেই পালন করা হয় মৌসুমীর জন্মদিনের অনুষ্ঠান। এ সময় পরিবারের অন্যান্য সদস্যরা ছাড়াও উপস্থিত ছিলেন পরিচালক মুশফিকুর রহমান গুলজার।  তার আনা কেক কেটেই উদযাপন করা হয় মৌসুমীর ৪২তম জন্মদিন। যদিও কেক কাটার কোনো ইচ্ছাই ছিল না তার। পরিচালক গুলজারের সম্মান রাখতেই কেকটি কাটতে হয়েছে ‘প্রিয়দর্শিনী’কে।

১৯৯৩ সালে সোহানুর রহমান সোহান পরিচালিত ও কিংবদন্তী নায়ক সালমান শাহ অভিনীত ‘কেয়ামত থেকে কেয়ামত’ ছবির মাধ্যমে অভিনয়ে হাতেখড়ি হয় ঢাকাই চলচ্চিত্রে জনপ্রিয় মুখ আরিফা পারভিন মৌসুমীর।  এরপর আর পেছন ফিরে তাকাতে হয়নি। প্রথম ছবিতেই অভিনয় প্রতিভা দেখিয়ে জানিয়ে দেন চলচ্চিত্রে তিনি রাজত্ব করতেই এসেছেন। সেই থেকে শুরু।  দুই দশকেরও বেশি সময় ধরে ঢালিউডে এখনও ছড়াচ্ছেন তিনি মেধার দ্যুতি।

সানবিডি/ঢাকা/রাআ