মায়ের সহযোগিতায় আট বছর ধরে ধর্ষণ করল বাব‍া!

প্রকাশ: ২০১৫-১১-২৬ ১৬:৪৪:৩৬ আপডেট: ২০১৫-১১-২৬ ১৬:৪৪:৩৬

Rapeযাদের কোলে শৈশব কাটার কথা ছিল আদর-যত্ন-সুরক্ষায়, তারাই কীনা ভক্ষকের রূপ নিল ! ছিঁড়ে, কামড়ে খেল একরত্তি মেয়েটাকে! বিভীষকাময় করে তুলল শৈশবকে। এরকমই এক ঘৃণ্য ঘটনা স্পেনের। দীর্ঘ আট বছর ধরে নিজের বাবার হাতেই যৌন নির্যাতনের শিকার হতে হয়েছে বছর ১১ বছেরর এক নাবালিকাকে। আশ্চর্য হওয়ার শেষ এখানেই নয়। স্বামীকে এই কাজে রীতিমতো সাহায্য করে গেছে ওই মহিলা। নিজের মেয়ের যৌন নির্যাতনের ঘটনার একের পর এক ভিডিও করে গেছে সে। আর সে সব জমিয়েছে তার স্বামীর কম্পিউটারে। কম্পিউটার ঘেঁটে এরকম প্রায় ৮০০টি ভিডিওর সন্ধান পেয়েছেন গোয়েন্দারা।

দম্পতির এই ঘৃণ্য কার্যকলাপ সামনে আসতেই চলতি বছরের শুরুর দিকে অভিযুক্ত স্বামীকে গ্রেফতার করে পুলিশ। পরে পুলিশি হেপাজতেই আত্মহত্যা করে সে। ভিডিওগুলি সামনে আসার পর গ্রেফতার করা হয় ওই মহিলাকে। স্পেনের মালাগা গ্রামের কাছে থাকত এই দম্পতি। এই দম্পতির এক ছেলেও আছে। আপাতত নিগৃহীত নাবালিকা ও তার ভাইকে হোমে রাখা হয়েছে।

তদন্তকারীরা জানিয়েছেন, উদ্ধার হওয়া ভিডিওতে দেখা গেছে, অন্য শিশুদের সামনেও ওই দম্পতি নগ্ন হয়ে উপস্থিত হয়েছে। তারপর তাদের বাধ্য করেছে বিভিন্ন পর্নোগ্রাফি ভিডিও অনুকরণ করে যৌনক্রিয়ায় লিপ্ত হতে। উদ্ধার হওয়া এরকম ভিডিওর সংখ্যা প্রায় ৬০,০০০। ঘটনা দেখেশুনে তাজ্জব বনে গেছেন তদন্তকারী কর্মকর্তরাও।