পায়রা বিদ্যুত কেন্দ্রের শ্রমিকদের বেতনের কোটি টাকা ছিনতাই

সান বিডি ডেস্ক || প্রকাশ: ২০২০-০২-০৬ ০৯:৫০:১৫ || আপডেট: ২০২০-০২-০৬ ০৯:৫০:১৫

পায়রা তাপবিদ্যুত কেন্দ্রের ম্যানপাওয়ার কোম্পানির শ্রমিকদের বেতনের কোটি টাকা ছিনতাই হয়ে গেছে। টাকা বহনকারী মাইক্রোবাসে থাকা কোম্পানির মালিকসহ দুইজনকে কুপিয়ে আহত করেছে ছিনতাইকারীরা। আহতদের বরিশাল শেবাচিম হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। ঘটনা ঘটেছে বুধবার সন্ধ্যায় আমতলী-কুয়াকাটা মহাসড়কের টিয়াখালী কলেজসংলগ্ন এলাকায়। এ ঘটনায় জড়িত সন্দেহে পুলিশ মাইক্রোবাস চালক আবু বক্করকে আটক করেছে।

পুলিশ ও কোম্পানি সূত্রে জানা গেছে, আরইডব্লিউ, এসইডব্লিউ ও জেটি ট্রেডার্স নামের তিন ম্যানপাওয়ার কোম্পানি পায়রা তাপবিদ্যুত কেন্দ্রে শ্রমিক সরবরাহ করে আসছে। ওই তিন কোম্পানির ৫ শতাধিক শ্রমিক পায়রা তাপবিদ্যুত কেন্দ্রে কাজ করে। ওই শ্রমিকদের জানুয়ারি মাসের বেতন দেয়ার জন্য বরিশাল প্রিমিয়ার ব্যাংক শাখা থেকে আরইডব্লিউ সাড়ে ১২ লাখ, এসইডব্লিউ ৩৬ লাখ ও জেপি ট্রেডার্স ৫২ লাখ টাকা তুলে কলাপাড়া উপজেলার তাপবিদ্যুত কেন্দ্রে মাইক্রোবাস (ঢাকা মেট্রো-চ-৫১-৫৭৬১) যোগে নিয়ে যাচ্ছিল। পথে আমতলী-কুয়াকাটা মহাসড়কের টিয়াখালী কলেজসংলগ্ন স্থানে একটি ভ্যানগাড়ি ও বাঁশ ফেলে মাইক্রোবাসের গতিরোধ করে। পরে পেছন দিক থেকে ৫/৬টি মোটরসাইকেলে আসা ছিনতাইকারীরা দেশীয় অস্ত্র দিয়ে মাইক্রোবাসের কাঁচ ভেঙ্গে ভেতরে প্রবেশ করে এবং মাইক্রোবাসটি অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে টিয়াখালী কাঁচা সড়কে নিয়ে যায়। ওইখানে নিয়ে গাড়িতে থাকা কোম্পানির হোসাইন, জুয়েল, হুমায়ূন, ঝুনু ও তানভীনকে বেধড়ক মারধর করে টাকার ব্যাগ ছিনিয়ে নেয়ার চেষ্টা করে। এ সময় তানভিন ও ঝুনু প্রতিরোধ করলে তাদের এলোপাতাড়ি কুপিয়ে টাকার ব্যাগ ছিনতাই করে নিয়ে যায়। ছিনতাই শেষে ছিনতাইকারীরা বীরদর্পে মোটরসাইকেলযোগে পালিয়ে যায়। খবর পেয়ে আমতলী থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে মাইক্রোবাস চালক আবু বক্করকে আটক করে এবং মাইক্রোবাসটি উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে। ছিনতাইকারীদের হামলায় গুরুতর আহত ঝুনু ও তানভীনকে বরিশাল শেবাচিম হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

প্রত্যক্ষদর্শী নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক কয়েকজন বলেন, ছিনতাইকারীরা সড়ক থেকে অস্ত্রের মুখে মাইক্রোবাসটি গতিরোধ করে টিয়াখালী কাঁচা সড়কে নিয়ে যায়। পরে ওই স্থানে মাইক্রোবাসে থাকা লোকজনকে মারধর করে ব্যাগ নিয়ে পালিয়ে যায়।

বরগুনার পুলিশ সুপার মারুফ হোসেন পিপিএম বলেন, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠিয়েছি। এ বিষয়ে পুলিশ তৎপর রয়েছে। ছিনতাইকারীদের কাছ থেকে টাকা উদ্ধারের চেষ্টা চলছে।