বেতন স্কেলে গ্রেড উন্নীত করার দাবি ডিপ্লোমা চিকিৎসকদের

|| প্রকাশ: ২০১৫-১০-১২ ১৭:৩৪:১৯ || আপডেট: ২০১৫-১০-১২ ১৭:৩৪:১৯

diploma BDMAসিলেকশন গ্রেড, টাইম স্কেল বহাল ও বেতন স্কেল ১০ম গ্রেডে উন্নীত করার দাবি জানিয়েছে উপসহকারী কমিউনিটি মেডিক্যাল অফিসারদের সংগঠন বাংলাদেশ ডিপ্লোমা মেডিক্যাল অ্যাসোসিয়েশন (বিডিএমএ)। একইসঙ্গে কমিউনিটি ক্লিনিকে নতুন পদ সৃষ্টি ও পূর্বেও ন্যায় ইন্টার্ণীভাতা প্রদান করার দাবি জানায় সংগঠটি। দাবি আদায় না হলে শিগগিরই বৃহত্তর আন্দোলন কর্মসূচির ডাক দিবে চিকিৎসকদের এ সংগঠনটি।
সোমবার জাতীয় প্রেসক্লাবের ভিআইপি লাউঞ্জে এক সংবাদ সম্মেলনে সংগঠনের পক্ষ থেকে এ দাবি জানানো হয়। সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন সংগঠনের সভাপতি ডা. মো. শামসুল হুদা (বড়)।
বক্তব্যে তিনি বলেন, ‘তিন বছর মেয়াদি কোর্সধারী ডিপ্লোমা নার্স, ইঞ্জিনিয়ার পূর্বেই দ্বিতীয় শ্রেণির পদমর্যাদা ও বেতন স্কেলে ১১তম থেকে ১০তম গ্রেডের সকল সুযোগ-সুবিধা ভোগ করে আসছে। অথচ আমরা চার বছর মেয়াদি কোর্স করেও এসব সুযোগ সুবিধা ও পদ ব্লক পোস্ট হিসেবে রাখায় পদোন্নতি থেকে বঞ্চিত হচ্ছি। সিলেকশন গ্রেড ও টাইম স্কেল বাতিল করায় আমাদের ভেতরে চাপা ক্ষোভ ও হতাশা বিরাজ করছে। এতে আমরা আর্থিক ক্ষতির সম্মুখীন হচ্ছি ও বৈষম্যের শিকার হচ্ছি।’
বর্তমানে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের অধীনে প্রায় ৫২০০ এবং পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তরের অধীনে ২৫০০ জন উপসহকারী কমিউনিটি মেডিক্যাল অফিসার সুনামের সঙ্গে কাজ করছেন। সুবিধাবঞ্চিত এ সমাজের জন্য প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা করেন শামসুল হুদা।
উপসহকারী কমিউনিটি মেডিক্যাল অফিসারদের ১৯৯৬ সালের আগে ইন্টার্ণীভাতা প্রদান করা হতো। পূনরায় এ ভাতা প্রদানের দাবি জানান সংগঠটির সভাপতি।
সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন সংগঠনের মহাসচিব সিরাজুল ইসলাম বাচ্চু, অতিরিক্ত মহাসচিব মো. আবুল হাসান, সাংগঠনিক সম্পাদক জাকির হোসেন বাদল, অর্থ সম্পাদক আবুল কাশেম প্রমুখ।
সানবিডি/ঢাকা/এসএস