চূড়ান্ত অনুমোদন পেল বেঙ্গল ব্যাংক

সান বিডি ডেস্ক || প্রকাশ: ২০২০-০২-১০ ১৯:৫৫:১০ || আপডেট: ২০২০-০২-১০ ১৯:৫৫:১০

চূড়ান্ত অনুমোদন পেয়েছে বেঙ্গল ব্যাংক লিমিটেড। রোববার বাংলাদেশ ব্যাংকের পরিচালনা পর্ষদের সভায় বেঙ্গল ব্যাংককে বাংলাদেশে ব্যাংকিং কার্যক্রম শুরু করার অনুমতি দেওয়া হয়েছে।

এ নিয়ে বাংলাদেশে মোট ব্যাংকের সংখ্যা ৫৯টিতে। এরমধ্যে সরকারি মালিকানাধীন ব্যাংকের সংখ্যা নয়টি। বেসরকারি ব্যাংক ৪১টি। আর বিদেশী ব্যাংক নয়টি।

সভা শেষে বাংলাদেশ ব্যাংকের নির্বাহী পরিচালক ও মুখপাত্র সিরাজুল ইসলাম সাংবাদিকদের বলেন, সব শর্ত পূরণ করায় বেঙ্গল ব্যাংককে চূড়ান্ত অনুমোদন দেওয়া হয়েছে।

এছাড়া সভায় স্ট্যান্ডার্ড ব্যাংক এবং এনআরবি কমার্শিয়াল ব্যাংককে প্রচলিত ব্যাংকিংয়ের পরিবর্তে ইসলামী ধারার ব্যাংকিং করার প্রস্তাব অনুমোদন দেওয়া হয়েছে বলে জানান তিনি।।

সমালোচনার মধ্যে গত বছরের ১৭ ফেব্রুয়ারি বেঙ্গল ব্যাংক, পিপলস ব্যাংক এবং সিটিজেন ব্যাংককে অনুমোদন দেয় বাংলাদেশ ব্যাংক। তিনটি ব্যাংকের উদ্যোক্তাদের সঙ্গে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের সংশ্লিষ্টতা রয়েছে।

বেঙ্গল ব্যাংকের উদ্যোক্তা বেঙ্গল গ্রুপ অব ইন্ডাস্ট্রিজ। আওয়ামী লীগের সংসদ সদস্য মোর্শেদ আলম এই গ্রুপের চেয়ারম্যান এবং প্রস্তাবিত ব্যাংকটির চেয়ারম্যান হলেন তার ছোট ভাই বেঙ্গল গ্রুপের ভাইস চেয়ারম্যান জসীম উদ্দিন।

আইনমন্ত্রী আনিসুল হকের মা জাহানারা হকের নাম সিটিজেন ব্যাংকের চেয়ারম্যান হিসেবে প্রস্তাব করা হয়েছে। পিপলস ব্যাংকটির আবেদনে প্রস্তাবিত চেয়ারম্যান ছিলেন যুক্তরাষ্ট্র প্রবাসী আওয়ামী লীগ নেতা এম এ কাশেম।

গত এক বছরে পেইড আপ ক্যাপিটাল (পরিশোধিত মূলধন) ৫০০ কোটি টাকাসহ প্রয়োজনীয় অন্যান্য শর্ত পূরণের পর বেঙ্গল ব্যাংককে চূড়ান্ত অনুমোদন দেওয়া হয়েছে।

১৭ পরিচালক ও তিন স্বতন্ত্র পরিচালক নিয়ে যাত্রা শুরু করবে ব্যাংকটি।

সভায় পিপলস ব্যাংক নিয়ে আলোচনা হলেও চূড়ান্ত অনুমোদন দেওয়া হয়নি বলে জানান কেন্দ্রীয় ব্যাংকের কর্মকর্তারা।

আওয়ামী লীগ সরকারের টানা তিন মেয়াদে এ নিয়ে ১৫টি ব্যাংকের অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। এছাড়া বিশেষ আইনে গঠিত প্রবাসী কল্যাণ ব্যাংককে গত বছর তফসিলি ব্যাংক হিসেবে অনুমোদন দেওয়া হয়।

গত সরকারের শেষ দিকে এই তিনটিসহ চারটি বাণিজ্যিক ব্যাংকের আবেদন জমা পড়েছিল কেন্দ্রীয় ব্যাংকে।

তখন বাংলাদেশ পুলিশ কল্যাণ ট্রাস্ট (বিপিডব্লিউটি) এর উদ্যোগে প্রতিষ্ঠিত কমিউনিটি ব্যাংক শুধু অনুমোদন পেয়েছিল।

নতুন রূপে স্ট্যান্ডার্ড-এনআরবি কমার্শিয়াল ব্যাংক

রোববারের পরিচালনা পর্ষদের সভায় স্ট্যান্ডার্ড ব্যাংক এবং এনআরবি কমার্শিয়াল ব্যাংককে প্রচলিত ধঅরার ব্যাংকিংয়ের পরিবর্তে ইসলামী ধারার ব্যাংকিং করার প্রস্তাব অনুমোদন দেওয়া হয়েছে।

এই ব্যাংক দুটি প্রচলিত ব্যাংকিংয়ের পরিবর্তে আগামী দিনে শুধু ইসলামী ধারার ব্যাংকিং করবে। এনআরবি গ্লোবাল ব্যাংকের নাম পরিবর্তন করে গ্লোবাল ইসলামী ব্যাংক করার প্রস্তাব অনুমোদন দিয়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক। আর স্ট্যান্ডার্ড ব্যাংকের নাম হবে স্ট্যান্ডার্ড ইসলামী ব্যাংক।
সানবিডি/ঢাকা/এসএস